মানুষের পাশে থেকে সুখ-দুঃখ ভাগাভাগি করে নেওয়াটাই আমার নেশা ..দেওয়ান রনি


দেশ সময় প্রকাশের সময় : ২০২৪-০৬-২২, ১০:৫৭ অপরাহ্ন /
মানুষের পাশে থেকে সুখ-দুঃখ ভাগাভাগি করে নেওয়াটাই আমার নেশা ..দেওয়ান রনি
print news || Dailydeshsomoy

প্রকাশিত,২২,জুন, ২০২৪

মোঃ বাবুল নেত্রকোণা থেকেঃ

নেত্রকোণা জেলার তরুণ প্রজন্মের অহংকার। সাধারণ মানুষের আত্মনির্ভরশীল যোগ্য ব্যক্তিত্ব দেওয়ান রনি।
তিনি নেত্রকোণা জেলা আওয়ামীলীগের ১নং সাংগঠনিক সম্পাদক এবং যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক ও ঐতিহ্যবাহী নেত্রকোণা আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় এন্ড কলেজের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি।

জানা যায়,নেত্রকোণা জেলার সাতপাই কালীবাড়ির ঐতিহ্যবাহী দেওয়ান পরিবারের বড় সন্তান হিসেবে তিনি নিজেকে বিলীন করে দেন সাধারণ অসহায় মানুষের জন্য।

ফিরে যাচ্ছি ২০২০ সাল সেই ভয়াবহ করোনাকালীন সময়ে
যখন নিজেকে নিয়ে নিজেই আতংক ছিল সবাই ঠিক সেই সময়ে নিজের জীবনকে বিন্দু পরিমাণ তোয়াক্কা না করে গরীব-অসহায় মানুষের ঘরে পৌঁছে দেন খাদ্য-সামগ্রী আর সুরক্ষার জন্য বিতরণ করেন মাস্ক ও হ্যান্ড-স্যানেটারী।
শুধু তাই নয় করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য দুইটি এম্বুল্যান্সের ব্যবস্থা করে দেন।
শুধু কি তাই মুমূর্ষু রোগীর জন্য ঢাকা থেকে নিয়ে আসেন অক্সিজেন সিলিন্ডার।

করোনাকালীন সময়ে সুরক্ষিত সু-ব্যবস্থা করায় প্রশাসনিক দফতর থেকেও দেওয়ান রনি প্রশংসনীয় হন।

এর পর ২০২২ সালে চলে আসে পাহাড়ি ঢল আর প্রচুর বৃষ্টিতে ভয়াবহ বন্যা।
এই বন্যায় নেত্রকোণা জেলায় হাজার হাজার মানুষ হয়ে যায় পানি বন্দী।
এরই ধারাবাহিকতায় অসহায়, গরীবের পাশে দাঁড়ান খাদ্য-সামগ্রী নিয়ে সাবেক এই ছাত্রনেতা দেওয়ান রনি।

নেত্রকোণা জেলার অলিগলিতে খুবই পরিচিতি নাম ও মুখ দেওয়ান রনি।

তিনি যেন গরীব-অসহায় ও সাধারণ মানুষের ভালবাসার প্রতিফলক।

দেওয়ান রনি একজন মানবতার ফেরিওয়ালা তারই লক্ষ্যে তিনি নেত্রকোণা জেলায় পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হিসেবে জেলার বিভিন্ন ওয়ার্ডে ঈদের কুশল বিনিময় করেন এবং সাধারণ মানুষের খোঁজ-খবর রাখছেন।

এ ব্যাপারে জেলার একাধিক ব্যক্তির সঙ্গে কথোপকথনে জানতে পারে এ প্রতিবেদক আসছে পৌর নির্বাচনে তরুণ প্রজন্মের আইকন নিঃঅহংকারী পরোপকারী দেওয়ান রনির মেয়র হলে গরীব-অসহায়-সাধারণ মানুষ তার সঙ্গে মনখোলে সুখ-দুঃখের কথা বলতে পারবে।

এ প্রসঙ্গে নেত্রকোণা জেলার সাধারণ মানুষের ভালবাসার আস্থা।নেত্রকোণা জেলার
তরুণ আওয়ামীলীগের বিল্পবী নেতা দেওয়ান রনি বলেন,আমি সর্বক্ষণ অতি সাধারণ মানুষ, গরীব অসহায় মানুষের সুখ-দুঃখে থাকি এবং রাত যতই হোক ফোন করলে যে সমস্যায় থাকুক না কেন আমি চেষ্টা করি সমাধানের।
আমি যখন নেত্রকোণা ১৯৯৩ সালে ছাত্রলীগ করি তখন থেকে মানুষের পাশে থাকতে নিজেকে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি।
কেন জানি সাধারণ মানুষের পাশে থাকতে ভাল লাগে।

তিনি আরও জানান,একজন আরেকজনকে সাহায্য সহযোগিতা করা নৈতিক দায়িত্ব আর সেটা ভেবেই আমি আমাকে সবার মাঝে বিলিয়ে দেই।
নির্বাচন প্রসঙ্গে কথা হলে তিনি জানান
আমার পরিবার একটা রাজনৈতিক পরিবার তারই লক্ষ্যে পরিবারের সিন্ধান্তই মানুষের পাশে যেন আরও বেশি সময় দিতে পারি সেই লক্ষ্যে পৌর নির্বাচনে মেয়র পদে নির্বাচন করবো তাই
সবাই আমার জন্য দোয়া ও সহযোগিতা করবেন।